1. admin@news24hour.net : admin :
৩৮৫ মামলায় দোষী সাব্যস্ত মাত্র সাড়ে তিন শতাংশ - নিউজ ২৪ আওয়ার
সোমবার, ০৪ মার্চ ২০২৪, ০৭:৪২ পূর্বাহ্ন

৩৮৫ মামলায় দোষী সাব্যস্ত মাত্র সাড়ে তিন শতাংশ

  • প্রকাশিত : বৃহস্পতিবার, ১৫ ডিসেম্বর, ২০২২
  • ৬৬ বার পঠিত

নিউজ24আওয়ার ডেস্কঃ জেন্ডারভিত্তিক সহিংসতার ৩৮৫টি মামলার ৫০৫ আসামির মধ্যে মাত্র ৩৬ জনকে দোষী সাব্যস্ত করা হয়েছে। অর্থাৎ দোষী সাব্যস্ত হওয়ার হার মাত্র ৩ দশমিক ৬ শতাংশ। 
ব্র্যাক পরিচালিত এক গবেষণায় এ তথ্য উঠে এসেছে। গবেষণার ফল তুলে ধরতে সোমবার সন্ধ্যায় রাজধানীর ব্র্যাক সেন্টারে অ্যাডভোকেসি সংলাপের আয়োজন করা হয়। ফল উপস্থাপন করেন সুপ্রিমকোর্টের আইনজীবী মো. তাজুল ইসলাম। তিনি ওই গবেষণা সেলের সদস্য। 

জেন্ডারভিত্তিক সহিংসতা সংক্রন্ত মামলাগুলোর ক্ষেত্রে পাবলিক প্রসিকিউশন সিস্টেমের বিদ্যমান দুর্বলতাগুলো চিহ্নিত করতে গবেষণাটি পরিচালনা করা হয়। 

সংলাপে বক্তারা বলেন, বিভিন্ন সামাজিক ও প্রাতিষ্ঠানিক বাধার কারণে আমাদের দেশে নির্যাতনের শিকার নারী ও মেয়ে শিশুদের ন্যায়বিচার পাওয়ার হার আশঙ্কাজনকভাবে কম। জেন্ডারভিত্তিক সহিংসতার শিকার নারী ও মেয়ে শিশুদের অধিকাংশই তাদের সঙ্গে সংঘটিত অপরাধের বিচার চাইতে অক্ষম। এমনকি তারা মামলা দায়ের করতে পারলেও তদন্ত বিলম্বিত হয়, বিচার দীর্ঘায়িত হয় এবং শেষ পর্যন্ত খুব কম মামালায় দায়ী ব্যক্তিরা দোষী সাব্যস্ত হয়।

সংলাপে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের সহকারী কমিশনার মোছা. মোফেলা খাতুন মেমী বলেন, নারী ও মেয়েদের প্রতি সহিংসতার বিচার নিশ্চিত করতে উইমেন সাপোর্ট অ্যান্ড ইনভেস্টিগেশন বিভাগের আইনি ও বিভাগীয় জবাবদিহি জরুরি।

বিচার প্রশাসন প্রশিক্ষণ ইনস্টিটিউটের পরিচালক (প্রশিক্ষণ) শেখ আশফাকুর রহমান বলেন, আইন, বিচার ও সংসদবিষয়ক মন্ত্রণালয় নির্যাতনের শিকার ব্যক্তিদের সঙ্গে সংবেদনশীল আচরণ নিশ্চিত করতে বিচার কাজে যুক্ত ব্যক্তিদের জেন্ডার সংবেদনশীলতাবিষয়ক প্রশিক্ষণ প্রয়োজন।

ঢাকা জজ আদালতের অবসরপ্রাপ্ত সিনিয়র জেলা জজ মিসেস তানজিনা ইসমাইল বলেন, নারী নির্যাতন সংক্রান্ত মামলাগুলোর ন্যায়বিচার নিশ্চিত করতে প্রসিকিউটরদের জবাবদিহি ও স্বচ্ছতা নিশ্চিত করতে হবে।

স্যার সলিমুল্লাহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ফরেনসিক মেডিসিন বিভাগের বিভাগীয় প্রধান ডা. সোহেল মাহমুদ বলেন, ফরেনসিক পরীক্ষা জেলা ও উপজেলা পর্যায়ে সম্প্রসারণ করতে হবে।

অনুষ্ঠানে ন্যাশনাল লিগ্যাল এইড সার্ভিসেস অর্গানাইজেশনের পরিচালক (জেলা জজ) মোহাম্মদ আল মামুন সরকারের আইনি সহায়তা নিয়ে আলোচনা করেন।

ব্র্যাকের জেন্ডার জাস্টিস অ্যান্ড ডাইভারসিটি কর্মসূচির পরিচালক নবনিতা চৌধুরী আদালতে নারী ও শিশুবান্ধব পরিবেশ নিশ্চিত এবং প্রসিকিউশন সিস্টেমের সঙ্গে যুক্ত কর্মীদের জেন্ডার সংবেদনশীলতা অনুশীলন নিশ্চিত করার প্রতি জোর দেন। সংলাপ সঞ্চালনা করেন ব্র্যাকের জেন্ডার জাস্টিস অ্যান্ড ডাইভারসিটি বিভাগের কর্মসূচি প্রধান মাসুমা বিল্লাহ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরও খবর

ফেসবুকে আমরা

© স্বত্ব সংরক্ষিত © ২০২২ নিউজ ২৪ আওয়ার
Theme Customized By Shakil IT Park